যশোর আজ সোমবার , ২৮ মার্চ ২০২২ ১১ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আমাদের যশোর
  5. খেলা
  6. জবস
  7. জাতীয়
  8. প্রবাস
  9. ফিচার
  10. বিনোদন
  11. ভ্রমণ
  12. রাজনীতি
  13. রান্না
  14. রূপচর্চা
  15. লাইফস্টাইল

বড় ভাইয়ের মেয়েকে পিটিয়ে জখম করলো আপন চাচা

প্রতিবেদক
Jashore Post
মার্চ ২৮, ২০২২ ৫:৩০ অপরাহ্ণ
বড় ভাইয়ের মেয়েকে পিটিয়ে জখম করলো আপন চাচা
সর্বশেষ খবর যশোর পোস্টের গুগল নিউজ চ্যানেলে।

শার্শা প্রতিনিধি :: যশোরের শার্শার পল্লীতে জমাজমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে আপন বড় ভাইয়ের কন্যা তানজিলা (৩৬) কে মর্মান্তিক ভাবে পিটিয়ে জখম করেছে চাচা মহিবুল। ভূক্তভোগী উপজেলার বাঁগআঁচড়া ইউপির সামটা গ্রামের মহিউদ্দিনের কন্যা ।

রবিবার ( ২৭মার্চ ) সন্ধ্যায় ভূক্তভোগীর বসত বাড়ি এলাকায় এ বর্বোরচিতো ঘটনাটি ঘটে। বর্তমানে সে শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কম্পপ্লেক্স এ চিকিৎসাধীন রয়েছে। ইতিমধ্যে ভূক্তভোগীর ভাই হামলা ঘটনার বিচার চেয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

ঘটনার তথ্য সূত্রে ভূক্তভোগীর মা মর্জিনা জানাই,দীর্ঘদীন ধরে আমার দেওর মহিবুল গাজীর সহিত পৈত্রিক সম্পত্তির সীমানা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো।ইতিপূর্বেও মহিবুল গংরা আমার বসত বাড়িতে প্রবেশ করে আমার ছেলে মেয়ের বেধড়ক মারধর করেছে।পরবর্তীতে এলাকাবাসীর চাপে তারা চুপ থাকে। গতকাল সকালে মহিবুল তার ছেলে শহীদ,আবুসাঈদ দলবদ্ধ ভাবে আমার বাড়ি প্রবেশ করে আমার মেয়েকে অশ্রাব্য গালিগালাজ ও মারধর করে।

প্রতিবেশীদের প্রতিরোধের মুখে তারা প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে বাড়িছেড়ে যায়। পরবর্তীতে সন্ধ্যায় কলে পানি আনতে গেলে আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা মহিবুল গংরা লাঠি,রড দিয়ে পিটিয়ে আমার মেয়েকে গুরুতর জখম করে ফেলে রেখে যায়।পরে স্থানীয় প্রতিবেশেীদের সহযোগীতায় আমার মেয়েকে হাসপাতালে ভর্তি করি।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে রিজিয়া,লিলি সহ একাধিক প্রতিবেশী জানান,শহিদ ও তার ভাই বকাটে। প্রায়ই তারা তার চাচার পরিবারের সাথে গোলযোগ বাধায়। সর্বশেষ গতকাল সন্ধ্যায় তানজিলার উপর মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন চালিয়ে বাস,লাঠি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে মহিবুল ও তার পুত্ররা।তার ডাক চিৎকারে আমরা ছুটে গেলে তারা দেখে নেওয়ার হুমকি দিয়ে পালিয়ে যায়। বর্তমানে ভূক্তভোগীর পরিবার চরম নিরাপত্তাহীতায় রয়েছে।

অভিযোগের বিষয়টি বাঁগআচড়া তদন্দকেন্দ্রের ডিউটিরত অফিসার নিশ্চিত করে জানান,ভূক্তভোগী তদন্তকেন্দ্রে এসেছিলো তাকে চিকিৎসা নিতে বলা হয়েছে। পুলিশ দ্রুত ঘটনাটি তদন্ত করে কার্যকরী ব্যাবস্থা নিবে।

ভূক্তভোগী তানজিলা তার উপর ন্যাক্কার জনক হামলায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী চেয়ে জানান, ইতি পূর্বেও শহিদ গংরা আমাকে মেরে স্বর্নালংকার সহ কাছে ভ্যানেটি ব্যাগে থাকা টাকা ছিনিয়ে নেয়।

আপন আত্নীয় বিধায় স্থানীয় শালিসে বিষয়টি তাদের ক্ষমা করা হয়। আবারো তারা আমার উপর পরিকল্পিত ভাবে হামলা চালিয়েছে। এখনো পর্যন্ত প্রশাসন কোন পদক্ষেপ না নেওয়ায় হামলাকারীদের দ্বারা আমি পুনরায় হামলার আশঙ্কা করছি।

সর্বশেষ - সারাদেশ