যশোর আজ শুক্রবার , ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আমাদের যশোর
  5. খেলা
  6. গল্প
  7. জবস
  8. জাতীয়
  9. প্রবাস
  10. ফিচার
  11. বিনোদন
  12. রাজনীতি
  13. রান্না
  14. রূপচর্চা
  15. লাইফস্টাইল

যশোরে ইয়াসিন হত্যাকান্ডে গ্রেফতার-৪

প্রতিবেদক
Jashore Post
ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২২ ৫:৩০ অপরাহ্ণ
যশোরে ইয়াসিন হত্যাকান্ডে গ্রেফতার-৪
সর্বশেষ খবর যশোর পোস্টের গুগল নিউজ চ্যানেলে।

যশোর প্রতিনিধি:: যশোর জেলা গোয়েন্দা শাখা ( ডিবি ) পুলিশের তৎপরতায় মাত্র ১২ঘন্টা সময়ের মধ্যে চাঞ্চল্যকর ইয়াসিন হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটনসহ জড়িত ৪জন গ্রেফতার হয়েছে।

বৃহষ্পতিবার ( ১৭ফেব্রুয়ারী )দিবাগত রাত হতে ১২ ঘন্টা সময়ের মধ্যে বিভিন্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ঐ ৪জনকে গ্রেফতার করে যশোর ডিবি পুলিশ সদস্যরা।

গ্রেফতারকৃতরা হলো যশোর জেলার কোতয়ালীথানাধীন শংকরপুর এলাকার তোরবাআলী বিশ্বাসের তিন পুত্র মোস্তাফিজুর রহমান ওরফে স্বর্ণকার রানা (৩৮),মোঃ রুবেল হোসেন (৩৫) মোঃ হাফিজুর রহমান (২৩) ও বর্তমান ঠিকানা ঈশ্বরদী পাবনার ( ভাসমান) মোঃ রেজাউল ইসলামের পুত্র মোঃ আব্দুল কাদের ওরফে শান্ত (২২)।

যশোর জেলা গোয়েন্দা পুলিশের প্রেস ব্রিফ্রিং হতে জানা যায়,গত ১৬ ফেব্রুয়ারী রাতে যশোর কোতয়ালী থানাধীন শংকরপুরস্থ চোপদারপাড়া ব্রাদার্সক্লাবের মধ্যে স্থানীয় যুবলীগ কর্মী ইয়াসিন আরাফাতকে অজ্ঞাতনামা কতিপয় দুষ্কৃতিকারী ধারালো অস্ত্রদ্বারা কুপিয়ে জখম করে ফেলে রেখে চলে যায়।পরবর্তীতে স্থানীয়রা দ্রুত তাকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে নিলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক ইয়াসিনকে মৃত ঘোষণা করে।

ঘটনাটি সম্পূর্ন ক্লুলেস হওয়ায় তাৎক্ষনিক ভাবে যশোরের সুযোগ্য পুলিশ সুপার জেলা গোয়েন্দা শাখাকে খুনের রহস্য উদঘাটন সহ আসামী আটকের নির্দেশনা প্রদান করেন। এরই ধারাবাহিকতায় কোতয়ালী ওসি ও ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রুপণ কুমার সরকারের তত্তাবাধনে ডিবি পুলিশের চৌকস এস আই মফিজুল ইসলামের নেতৃত্বে ডিবি পুলিশের একটি চৌকস দল খুলনা খানজাহান আলী থানাধীন শিরোমনি লিন্ডা ক্লিনিক থেকে হত্যাকান্ডে জড়িত প্রধান আসামী স্বর্ণকার রানা ও তার ভাই রুবেল হোসেনকে আটক করে।

হত্যাকান্ড ঘটনায় নিহতের স্ত্রী শাহানা আক্তার নিশা বাদী হয়ে ১৭ তারিখ কোতয়ালী থানায় মামলা রুজু করেন। যাহার নং-৯৭( ৩০২ধারা) ও তাং-১৭-২-২০২২ইং। গ্রেফতারকৃতদের দেওয়া তথ্য মতে আবারো ডিবি সদস্যরা হত্যাকান্ডে জড়িত অন্যান্যদের ধরতে খুলনার শিরোমনি এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে অপর ২ আসামীকে ধরতে সক্ষম হন। গ্রেফতারকৃতদের স্বীকারোক্তি ও দেখানো মোতাবেক কতোয়ালী থানাধীন নজির শংকরপুর চাতালের মোড় এলাকা হতে ২টি বার্মিচ চাকু ও ঘটনা স্থলের আশ পাশের ড্রেন হতে ১টি গাছি দা,১টি চাপাতি,আসামীদের ব্যবহৃত বস্ত্র ও স্যান্ডেল উদ্ধার করা হয়।

ডিবি পুলিশের প্রাথমিক জিঙ্গাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানাই,পূর্বশত্রুতার জের,মাদক বিক্রি,চাঁদাবাজি ও এলাকায় আধিপত্য বিস্তার ও রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ হওয়ার কারনে এজহার নামীয় আসামীরা পরষ্পর যোগসাজে পূর্বপরিকল্পিত ভাবে ইয়াসিন আরাফাতকে কুপিয়ে ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে চাকু ঢুকিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

সর্বশেষ - লাইফস্টাইল