যশোর আজ শুক্রবার , ১৪ জুন ২০২৪ ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আমাদের যশোর
  5. খেলা
  6. গল্প
  7. জবস
  8. জাতীয়
  9. প্রবাস
  10. ফিচার
  11. বিনোদন
  12. রাজনীতি
  13. রান্না
  14. রূপচর্চা
  15. লাইফস্টাইল

বেড়েছে আদার দাম! অপরিবর্তিত পেঁয়াজ-রসুন

প্রতিবেদক
Jashore Post
জুন ১৪, ২০২৪ ১০:১০ অপরাহ্ণ
বেড়েছে আদার দাম! অপরিবর্তিত পেঁয়াজ-রসুন
সর্বশেষ খবর যশোর পোস্টের গুগল নিউজ চ্যানেলে।

জৈষ্ঠ্য প্রতিবেদক :: পবিত্র ঈদুল আজহার আর মাত্র দুদিন বাকি। ঈদকে সামনে রেখে এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৪০ টাকা বেড়ে আদার কেজি পৌঁছেছে ৩০০ টাকায়। দেশি পেঁয়াজ ও রসুনের উচ্চমূল্য রয়েছে অপরিবর্তিত। এছাড়া ক্রস জাতের পেঁয়াজের দাম কেজিতে পাঁচ টাকা বেড়ে ৮৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

কাঁচা মরিচসহ বেশ কিছু সবজি এবং ডিমের দামও বেড়েছে। ক্রেতাদের অভিযোগ,ঈদকে কেন্দ্র করে এসব পণ্যের দাম বাড়ানো হয়েছে। বিক্রেতারা বলছেন, ঈদ নয়,আগে থেকেই এসব পণ্যের দাম বাড়তি।

শুক্রবার ( ১৪ জুন ) রাজধানীর মিরপুর ১ নম্বরের কাঁচা বাজারে সরেজমিন দেখা যায়, মানভেদে ক্রস জাতের পেঁয়াজ ৮৫ টাকা, দেশি পেঁয়াজ ৯০ টাকা, লাল আলু ৬০ টাকা, সাদা আলু ৬০ টাকা, বগুড়ার আলু ৭০ টাকা, নতুন দেশি রসুন ২২০ টাকা, চায়না রসুন ২২০-২৩০ টাকাG

চায়না আদা ৩০০ টাকা, ভারতীয় আদা ৩০০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। এ ক্ষেত্রে দেখা গেছে, কেজিতে ক্রস জাতের পেঁয়াজের দাম গত সপ্তাহের চেয়ে পাঁচ টাকা, ভারতীয় আদার দাম ২০ টাকা এবং চায়না আদার দাম ৪০ টাকা বেড়েছে।

এ প্রসঙ্গে বিক্রেতা আলাউদ্দীন বলেন, ‘আগে থেকেই পেঁয়াজ, আদা, রসুনের দাম বাড়তি ছিল। তবে এটাও সত্য, কোরবানির ঈদে এসব পণ্যের দাম বাড়ে।

বিক্রেতা সাইফুল বলেন, ‘কোরবানির ঈদে আদা, রসুন, পেঁয়াজের দাম বেড়ে যায়। কারণ এ সময় এসব পণ্যের চাহিদা বেশি থাকে। তার মানে এই না, আমরা দাম বাড়িয়ে দেই। পাইকারি বাজারে দাম বেড়ে যায় বলেই আমাদের বেশি দামে বিক্রি করতে হয়।

বিস্ময় প্রকাশ করে ক্রেতা আজাদ রহমান বলেন, ‘আদার দাম ৩০০ হয়ে গেলো! রসুন-পেঁয়াজের দামও বেশি। ব্যবসায়ীরা খালি উপলক্ষ খোঁজে। এখন ঈদের সময়,তাই দাম বাড়িয়েছে।

সর্বশেষ - লাইফস্টাইল