যশোর আজ বুধবার , ১১ মে ২০২২ ১১ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আমাদের যশোর
  5. খেলা
  6. জবস
  7. জাতীয়
  8. প্রবাস
  9. ফিচার
  10. বিনোদন
  11. ভ্রমণ
  12. রাজনীতি
  13. রান্না
  14. রূপচর্চা
  15. লাইফস্টাইল

“অশনি’র ” প্রভাবে ভারী বৃষ্টিপাতে শার্শায় কৃষকদের স্বপ্নের ধান ভাসছে পানিতে

প্রতিবেদক
Jashore Post
মে ১১, ২০২২ ২:০২ অপরাহ্ণ
“অশনি’র ” প্রভাবে ভারী বৃষ্টিপাতে শার্শায় কৃষকদের স্বপ্নের ধান ভাসছে পানিতে
সর্বশেষ খবর যশোর পোস্টের গুগল নিউজ চ্যানেলে।

শার্শা প্রতিনিধি:: ঘূর্নিঝড় অশনি’র প্রভাবে ভারী বর্ষনে যশোরের শার্শা উপজেলা জুড়েই ধান চাষীদের কষ্টার্জিত জমির ফসল এখন পানিতে ভাসছে।এর সাথে পাল্লা দিয়ে বেছেড়ে শ্রমিক সঙ্কট।

বৈরী আবহাওয়ায় ধান বহনের যানবাহন ও ফসল সংগ্রহের শ্রমিক না পাওয়ায় চরম দূভোর্গে উপজেলার হাজার হাজার ধান চাষী।

এলাকা বাসীর দেওয়া তথ্য মতে কোন কোন ফসলি এলাকার কোন কোন জমিতে ৪ হতে ৫ ইঞ্চি উচ্চতায় পানি জমেছে। ডুবে গেছে অনেক ফসলি জমির ধান। হেলে পড়ে নষ্ঠ হওয়ার আশঙ্কায় রয়েছে শত শত বিঘা ধান।

উপজেলার ঘীবা গ্রামের ধান চাষী আরিফ মাহমুদ জানান,বৈরী আবহাওয়ার কারনে থাকা-খাওয়া বিঘা প্রতি শ্রমিকের মূল্য ৬ হাজার টাকা হলেও মিলছেনা পর্যাপ্ত শ্রমিক। যানবাহন খরচ বিঘা প্রতি ১৫শো টাকা হলেও জলাবদ্ধতার কারনে যানবাহন না চলায় চাষীরা ক্ষেত হতে মাথায করে ধান বহণ কাজ করছেন।বোরো চাষীদের এ বছর ফলন ভালো হলেও ঘূর্নিঝড়ের কারনে কৃষকদের ধান চাষে এবার লচ হবে।

উপজেলার বারোপোতা,ভূলোট,সরবাংহুদা, বাহাদুরপুর, নিজামপুর,বুসতলা,উলাশী,বোয়ালিয়া,লক্ষনপুর,ডিহি, নাভারন ও বাঁগআচড়ার গ্রাম গুলো জুড়ে একই চিত্র পরিলক্ষীত হয়।

শার্শা উপজেলার কৃষি কর্মকর্তা প্রতাপ মন্ডল জানান,উপজেলাজুড়ে এ বছর বোরো ধান চাষের জমির পরিমান ২৩ হাজার ৬শ হেক্টর।এর মধ্যে ৭০ভাগ চাষীরা তাদের ধানের ফসল সংগ্রহ করেছেন। ঘূর্নিঝড় অশিনি’র প্রভাবে ভারী বৃষ্টির কবলে উপজেলার ৩০ ভাগ ফসলি জমি আক্রন্ত হয়েছেন।

বৈরী আবহাওয়ার মধ্যেই চাষীদের ফসল সংগ্রহের কাজ চলছে,ঝড় শেষে ফসল সংগহের পর চাষীদের ক্ষয়-ক্ষতির পরিমান নির্ধারন করা যাবে। উপজেলায় সরকারী ভাবে ৪ টা হারভাস্টার কম্বাইন্ড মেশিন ধান কাটার কাজ করে যাচ্ছে।

তবে কোন কোন জমিতে ৪/৫ ইঞ্চি পানি জমে যাওয়ায় সেখানে মেশিনের সাহায্যে ফসল কর্তন ও সংগ্রহ কাজ ব্যাহত হচ্ছে। উপজেলা কৃষি অফিসের কর্মকর্তারা এলাকার ক্ষতিগ্রস্থ চাষীদের পাশে থেকে সার্বক্ষনিক পরামর্শ প্রদান করছেন।

সর্বশেষ - সারাদেশ