যশোর আজ মঙ্গলবার , ২৩ এপ্রিল ২০২৪ ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আমাদের যশোর
  5. খেলা
  6. গল্প
  7. জবস
  8. জাতীয়
  9. প্রবাস
  10. ফিচার
  11. বিনোদন
  12. রাজনীতি
  13. রান্না
  14. রূপচর্চা
  15. লাইফস্টাইল

নারায়ণগঞ্জে শটগান দিয়ে মাথায় গুলি করে আনসার সদস্যের ‘আত্মহত্যা’

প্রতিবেদক
Jashore Post
এপ্রিল ২৩, ২০২৪ ৯:২২ পূর্বাহ্ণ
নারায়ণগঞ্জে শটগান দিয়ে মাথায় গুলি করে আনসার সদস্যের ‘আত্মহত্যা’
সর্বশেষ খবর যশোর পোস্টের গুগল নিউজ চ্যানেলে।

স্টাফ রিপোর্টার :: নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলায় নিজ শটগানের গুলিতে এক আনসার সদস্যের মৃত্যু হয়েছে। নিজ মাথায় গুলি চালিয়ে তিনি ‘আত্মহত্যা’ করেছেন বলে দাবি পুলিশের। নিহত ২৫ বছর বয়সি আফজাল হোসেন চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলার বাসিন্দা।

সোমবার ( ২২ এপ্রিল ) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান বলে জানিয়েছেন হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া।

সোমবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ( ইউএনও) বাসভবনে দায়িত্বরত অবস্থায় এ ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছেন বন্দর থানার ওসি গোলাম মোস্তফা। নিজ মাথায় গুলি চালানোর আগে ওই কর্মকর্তা বাসভবনের দেয়ালে ‘আমার মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী নয়’ লেখেন বলে জানান তিনি।

নিহতের সহকর্মী আনসার সদস্য মোহাম্মদ মিরাজুল ইসলাম জানান, আজ বিকেলে বন্দরের ইউএনও স্যারের ডিউটি চলাকালীন সে নিজের মাথায় শটগান ঠেকিয়ে ট্রিগারে চাপ দিয়ে গুলি করেন। এতে সে মেঝেতে লুটিয়ে পড়ে। এমত অবস্থায় আমরা তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যালে জরুরি বিভাগে নিয়ে আসলে চিকিৎসক দ্রুত অপারেশন থিয়েটারে পাঠিয়ে দেন। সেখানে মারা যান তিনি।

তিনি আরও বলেন, আমরা জানতে পেরেছি সে আত্মহত্যা করেছে। তার বাবার নাম ওয়াহিদুর রহমান। গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামে। এর বেশি কিছু বলতে পারি না।

বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এম এ মুহাইমিন আল জিহান বলেন, ঘটনার সময় আমি বাসভবনে ছিলাম না। আফজাল বিকেল ৪টার দিকে ডিউটি শুরু করেন। এর আধা ঘণ্টা পর শটগান দিয়ে নিজের মাথায় গুলি করেন। খবর পেয়ে সেখানে গিয়ে দেখি রক্তাক্ত অবস্থায় তিনি পড়ে আছেন। তাকে প্রথমে বন্দর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তার মৃত্যু হয়।

শটগান ও একটি গুলির খোসা জব্দ করা হয়েছে,ঘটনাটি তদন্তে একটি কমিটি গঠন করা হবে বলে জানান ইউএনও মুহাইমিন আল জিহান।

ঢামেক পুলিশ ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত ইনচার্জ সহকারী উপ-পরিদর্শক ( এএসআই ) মাসুদ মিয়া বন্দর থানার ওসির বরাত দিয়ে জানান, নিহত আনসার সদস্য বন্দর ইউএনওর গার্ড ছিল।

আজ বিকেলে সে শটগান থেকে নিজের মাথায় গুলি করে আত্মহত্যা করেন।ময়না তদন্তের জন্য মরদেহ ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি বন্দর থানাকে অবগত করা হয়েছে।

 

সর্বশেষ - লাইফস্টাইল