যশোর আজ সোমবার , ২৮ মার্চ ২০২২ ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আমাদের যশোর
  5. খেলা
  6. গল্প
  7. জবস
  8. জাতীয়
  9. প্রবাস
  10. ফিচার
  11. বিনোদন
  12. রাজনীতি
  13. রান্না
  14. রূপচর্চা
  15. লাইফস্টাইল

খালে মিললো মাথার একটি খুলি ও হাড়

প্রতিবেদক
Jashore Post
মার্চ ২৮, ২০২২ ৬:০৪ অপরাহ্ণ
খালে মিললো মাথার একটি খুলি ও হাড়
সর্বশেষ খবর যশোর পোস্টের গুগল নিউজ চ্যানেলে।

কামরুজ্জামান শাহীন,ভোলা প্রতিনিধি:: ভোলার লালমোহনে পরিত্যক্ত একটি খালে থেকে মাথার একটি খুলি ও শরীরের বিভিন্ন অঙ্গ-পতঙ্গের হাড় উদ্ধার করা হয়েছে।

রবিবার সন্ধ্যায় লালমোহন পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ড ওয়েষ্টার্ণপাড়া শেখের দোকানের পশ্চিম পাশে কালভার্ট সংলগ্ন খালে এই খুলি ও হাড়গুলো পাওয়া যায়।পাওয়া যায় শিশুর পড়নে থাকা পেন্টের বেল্টও।

ওই এলাকার রুহুল আমিন নামে এক ব্যক্তি পরিত্যক্ত খালের মাছ ধরার জন্য গত শনিবার থেকে কচুরিপানা পরিস্কার করার জন্য দুই জন শ্রমিক নামায়। রোববার সন্ধ্যার আগে শ্রমিক সেলিম কচুরিপানা পরিস্কার করার সময় প্রথমে মানুষের মাথার খুলি ও ২টি হাড় পান বলে জানা গেছে।

খবর পেয়ে লালমোহন থানার ওসি ( তদন্ত ) এনায়েত হোসেন ও সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে যান। এসময় দেহের বাকী হাড়গোড় খোঁজার জন্য পূণরায় শ্রমিকদের নামানো হয় খালে। সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে একই স্থানে আরো কিছু হাড় ও প্যান্টের বেল্ট পাওয়া যায়।

স্থানীয় সূত্রে আরো জানা যায়, কয়েকমাস আগে ওই এলাকার রাশেদের ছেলে ৩য় শ্রেণির ছাত্র রায়হান (৮) নামের এক শিশু নিখোঁজ হয়। উদ্বারকৃত খুলি ও হাড় ওই শিশুর বলে নিখোঁজ শিশুর পিতা রাশেদ দাবী করেন।

বিষয়টি নিয়ে শ্রমিক সেলিম জানান, বরিবার দুপুরের পর খালের কচুরিপানার মধ্যে একটি লাঠি পুতা ছিল সেটি টান দিলে প্রথমে মাথার খুলি ভেসে উঠে। এরপর দুইটি হাড় পাই। মানুষের মাথার খুলি পাওয়ার কারনে আমরা খাল থেকে উঠে যাই এবং ঘটনাটি পুলিশকে জানাই।

লালমোহন থানার ওসি (তদন্ত) এনায়েত হোসেন জানান, মানুষের মাথার খুলি পাওয়ার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। পরে বাকী হাড় খোঁজার জন্য খালে তল্লাাশি চালানো হয়। তল্লাাশি করে আরো কিছু হাড় পাওয়া যায়। এই খুলি ও হাড়গুলো কার তা সনাক্ত করতে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হবে। পরীক্ষার রিপোর্ট ও তদন্তের পর আসল ঘটনা জানা যাবে।

নিখোঁজ শিশু রায়হানের পিতা মোঃ রাশেদ জানান, গত বছরের ১২ অক্টোবর খেলাধুলার জন্য শিশু রায়হান বাড়ী থেকে বের হয়ে শেখের দোকানের দিকে গেলে নিখোঁজ হয়। এরপর থেকে তাকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি। এঘটনায় পরদিন লালমোহন থানায় সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছে।

উদ্বারকৃত খুলি ও হাড় তার নিখোঁজ ছেলের হতে পারে বলে তিনি ধারনা করেন। এজন্য প্রয়োজনীয় সকল পরীক্ষা নিরীক্ষা করার জন্য তিনি প্রস্তুত আছেন।

সর্বশেষ - লাইফস্টাইল